২০২৬ বিশ্বকাপ হবে ৩ দেশে

125

স্পোর্টস ডেস্ক: ২০২৬ ফিফা বিশ্বকাপ যৌথভাবে আয়োজন করবে যুক্তরাষ্ট্র, মেক্সিকো ও কানাডা। ফিফা’র কংগ্রেসে সিদ্ধান্ত হয়েছে এমনটাই। এই আসর দিয়েই প্রথমবারের মতো ৪৮ দলের বিশ্বকাপের যাত্রা শুরু হবে। পুরো আসরের ৮০টির মধ্যে ১০টি করে ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে কানাডা ও মেক্সিকোতে। আর বাকি ৬০টি ম্যাচ হবে যুক্তরাষ্ট্রে।

৩২ দলের পরিবর্তে ৪৮ দল নিয়ে বিশ্বকাপ আয়োজনের বিষয়টি ফুটবল বিশ্বে আলোচনায় দীর্ঘদিন ধরেই। তবে, ১৬টি দল বাড়লে বেশি সংখ্যক ম্যাচের জন্য বাড়তি ভেন্যুর প্রয়োজন হবে। নিঃসন্দেহে একটি আয়োজক দেশের জন্য বিশ্বমানের এতো ভেন্যুর ব্যবস্থা করা কঠিন হতো।

তবুও ফুটবল বিশ্বকাপে আরো বেশি দেশের অংশগ্রহণ নিশ্চিত করতে আগ্রহী ফিফা। তাই রাশিয়া বিশ্বকাপের আগে এবারের ফিফা কংগ্রেসের মূল এজেন্ডাগুলোর একটি ছিল যৌথ আয়োজকের বিষয়টি। তবে, ২০২২ কাতার বিশ্বকাপে না হলেও, প্রথমবারের মতো ৪৮ দলের বিশ্বকাপ হতে যাচ্ছে ২০২৬ সালে। বিশ্বকাপের জন্য যৌথ আয়োজকের নামই ঘোষণা হয়েছে।

বিশ্বকাপের ২৩তম আসরের আয়োজক নির্ধারণে ফিফার কংগ্রেসে নিজেদের পরিকল্পনাগুলো উপস্থাপন করেন যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা ও মেক্সিকোর যৌথ কর্তৃপক্ষ ও মরোক্কোর প্রতিনিধিরা। আসর থেকে মরোক্কো ৫ বিলিয়ন ডলার লাভের প্রস্তাব দিলেও, উত্তর আমেরিকান দেশগুলো ১১ বিলিয়ন ডলার লাভের সম্ভাবনার কথা বলে। দু’পক্ষের উপস্থাপনা শেষে অনুষ্ঠিত ভোটে নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেয়েছে উত্তর আমেরিকার তিন দেশ।

যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা আর মেক্সিকোর পক্ষে পড়েছে ১৩৪ ভোট। আর মাত্র ৬৫ ভোট পেয়ে ৫মবারের মতো নিলামে বাদ পড়েছে মরোক্কো। কংগ্রেসে ফিফা সভাপতির ঘোষণার পরই উল্লাসে মাতেন দেশগুলোর ফুটবল অভিভাবকরা।

SHARE

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

1 × two =